1. abdulmotin52@gmail.com : ABDUL MOTIN : ABDUL MOTIN
  2. madaripurprotidin@gmail.com : ABID HASAN : ABID HASAN
  3. jmitsolutionbd@gmail.com : support :
মাদারীপুর জেলাজুড়ে রাতভর ডাকাত আতংক ॥ সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ভাইরাল ॥ সাধারণ মানুষ রাত জেগে পাহাড়া ॥ মসজিদে মসজিদে মাইকিং - Madaripur Protidin
বৃহস্পতিবার, ০২ ফেব্রুয়ারী ২০২৩, ০৮:১৭ অপরাহ্ন
শিরোনাম :
 মাদারীপুরে জমি নিয়ে বিরোধে নারীসহ ৮জনকে কোপালো প্রতিপক্ষ বিএনপির সন্ত্রাসী কার্যক্রম ঠেকাতে শান্তি সমাবেশ করছে আ’লীগ: শাজাহান খান নির্মানের সাড়ে তিন বছর পর জট খুললো মাদারীপুর সদর হাসপাতাল মাদারীপুরের এবিসিকে সৈয়দ আবুল হোসেন কলেজে নবীন বরন ও সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান মুকসুদপুরে ইঁদুর মারার ফাঁদে মৎস্য শিকারীর মৃত্যু, ৬ দিন পর চান্দার বিলের কচুরি পানার নিচ থেকে লাশ উদ্ধার । খুলনা থেকে মূল হোতা অরুন দাস আটক ঢাকা মহানগরীর আদাবর থেকে গাইবান্ধার পলাশবাড়ীর শাম্মি হত্যা মামলার প্রধান আসামী কুখ্যাত খুনী মোঃ জাহাঙ্গীর আলম গ্রেফতার জেলা প্রশাসন আয়োজিত ১২দিনের অনুষ্ঠানিকতা শেষে ‘মাদারীপুর উৎসব ২০২৩’-এর বর্ণিল পর্দা নামলো শিবচরে ঢাকার সাভার থেকে ৪৯,০০০/- টাকার জালনোট ও জালনোট তৈরীর সরঞ্জামাদিসহ মুলহোতা মোঃ মহিবুল্ল্যাহ (২৩) ও তার সহযোগী গ্রেফতার নারায়নগঞ্জ থকেে প্রায় ৫ কোটি টাকা মূল্যের গার্মেন্টস মূলহোতাসহ ৭ সদস্যকে গ্রেফতার করেছে র‌্যাব-৪ঃ বিপুল পরিমাণ গার্মেন্টস পণ্যসহ ১ টি কাভার্ড ভ্যান জব্দ। ঢাকার আশুলিয়া থেকে পৃথক অভিযান পরিচালনা করে ২২৪ বোতল ফেন্সিডিলসহ ৪ জন মাদক ব্যবসায়ী গ্রেফতার । মোটর সাইকেল জব্দ।

মাদারীপুর জেলাজুড়ে রাতভর ডাকাত আতংক ॥ সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ভাইরাল ॥ সাধারণ মানুষ রাত জেগে পাহাড়া ॥ মসজিদে মসজিদে মাইকিং

  • প্রকাশিত : সোমবার, ২৮ নভেম্বর, ২০২২, ৪.৫৮ পিএম
  • ৫৮ জন পঠিত

টেকেরহাট (মাদারীপুর)সংবাদদাতা।।

মাদারীপুর জেলা জুড়ে রোববার রাত ১১ টার পর থেকে সারারাত ডাকাত আতংকে ছিলেন সাধারণ মানুষ। এই খবর মাদারীপুরের বিভিন্ন মানুষ সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে প্রচার করেছেন। এতে এই খবরটি ফেসবুকপাতায় জুড়ে ভাইরাল হয়। এছাড়াও ডাকাত আতংকের খবর জেলার বিভিন্ন মসজিদে মসজিদে মাইকিং করা হয়েছে। ফলে সাধারণ মানুষের মধ্যে ভয় ও আতংক দেখা দিলে, তারা রাত জেগে পাহারা দেন। এদিকে মাদারীপুর পুলিশ প্রশাসনের পক্ষ থেকেও সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমেও সচেতনমূলক পোস্ট দেয়া হয়েছে। এটা গুজব বলেও জানিয়েছেন পুলিশ। এসময় বিভিন্ন এলাকায় পুলিশ টহলও দিয়েছেন।

সংশিষ্ট একাধিক সূত্রে জানা গেছে, মাদারীপুর সদর উপজেলা, কালকিনি, ডাসার, শিবচর উপজেলার বিভিন্ন এলাকায় ডাকাতদল হানা দিয়েছে আবার কোথাও কোথাও হানা দিবে বলে আতঙ্ক ছড়িয়ে পড়ে। রোববার রাত ১১টার পর থেকে সারারাত জুড়ে এই আতংক বিরাজ করে। কোন ধরণের ডাকাতির ঘটনা না ঘটায় পরের দিন সোমবার ভোরে সাধারণ মানুষের মধ্যে কিছুটা হলেও স্বস্তি ফিরে এসেছেন।

মাদারীপুর সদর উপজেলার মস্তফাপুর, করদি, উত্তর চিড়াইপাড়া, নয়াচর, পাকদি, খাগদী, থানতলী, পিটিআই রোড, হাজির হাওলা, ছয়না, কুকরাইল, গগণপুর, শিবচর উপজেলার নলগোড়া, কালকিনি উপজেলার সাহেবরামপুর, এনায়েতনগর, ফাসিয়াতলা, ডাসার উপজেলার নবগ্রাম, খাতিয়ালসহ প্রায় এলাকাজুড়ে এই ডাকাত আতংক ছড়িয়ে পড়ে।

এই ঘটনায় আতংক হয়ে বিভিন্ন এলাকার মসজিদে মসজিদে মাইকিং করে ডাকাতের কথা জানানো হয়েছে। মাইকিং এ বলা হয়-আজ রাতে ডাকাতি হবে, তাই সবাই সাবধানে থাকবেন, সবাই জেগে পাহাড়া দিবেন। যে কোন সময় ডাকাতরা হামলা দিবে। এরপরই আরো বেশি আতংক ছড়িয়ে পড়ে জেলা জুড়ে। সেই সাথে বিভিন্ন মানুষজন সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম ফেসবুকে ডাকাতির খবর বিভিন্ন ভাবে শেয়ার দেন। এতে করেও সাধারণ মানুষের মধ্যে আতংক ছড়িয়ে পড়ে। অনেকেই ঘর ছেড়ে লাঠিসোটা নিয়ে রাত জেড়ে ডাকাত পাহাড়ায় থাকেন।

এদিকে যখন জেলাজুড়ে আতংক ছড়িয়ে পড়ে, তখন মধ্য রাতে মাদারীপুর সদর মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মো. মনোয়ার হোসেন চৌধুরী, মাদারীপুর পৌরসভার মেয়র মো. খালিদ হোসেন ইয়াদসহ বিভিন্ন প্রশাসনের লোকজন, সাংবাদিক ও সচেতন ব্যক্তিরা সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে ডাকাতির ঘটনা গুজব বলে সচেতনমুলক পোস্ট দিয়ে সাধারণ মানুষকে আশ^স্ত করেন।

মাদারীপুর সদর উপজেলার হাজির হাওলা গ্রামের শিক্ষক নুরজাহান বলেন, রাত তিনটার সময় আমার এক আত্মীয় রেজাউল বলেন হাজির হাওলা গ্রামে ডাকাত পড়েছে। সবাইকে সাবধান হতে হবে।

মাদারীপুর সদর উপজেলার চিড়াইপাড়া গ্রামের বাসিন্দা সাংবাদিক ইমদাদুল হক মিলন বলেন, আমাদের এখানে ডাকাত পড়েছে বলে মসজিদে মসজিদে মাইকিং করা হয়েছে।

মাদারীপুর সদর উপজেলার মস্তফাপুরের মেহেদী হাসান বলেন, রাতে মস্তফাপুর বাজার ও মস্তফাপুর বাসস্ট্যানে ডাকাতের হামলা হতে পারে বলে মসজিদে মসজিদে মাইকিং হয়েছে।
শিবচর উপজেলার নাসিরুল হক বলেন, শিবচরের নগগোড়া এলাকাসহ বিভিন্ন এলাকার মসজিদে মসজিদে ডাকাত আতংকের ঘোষণা হয়েছে।

এ ব্যাপারে কালকিনি থানার ডিউটি অফিসার এস. আই মিলন বলেন, এমন পরিস্থিতি সৃষ্টি হওয়ার পর থেকেই পুলিশ ডাকাত ধরতে এবং কোথা থেকে এই খবরের সূত্রপাত ঘটেছে তা উদ্ঘাটন করতে ব্যাপক তৎপরতা চালিয়েছেন। তবে শেষে মনে হচ্ছে বিষয়টি সবই গুজব। কেননা কোথাও কোন ডাকাতি হয়েছে বা ডাকাতির চেষ্টা হয়েছে এমন কোন খবর পুলিশ পাননি।

মাদারীপুর সদর মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. মনোয়ার হোসেন বলেন, ডাকাতির ঘটনা সম্পূর্ণ গুজব। এই গুজ বযাড়া ছড়িয়েছেন তাদের খুজে বের করে আইনের আওতায় আনা হবে।

সংবাদটি শেয়ার করুন

এই ক্যাটাগরির আরো সংবাদ

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

সর্বমোট ভিজিট করা হয়েছে

© All rights reserved © 2021

Design & Developed By : JM IT SOLUTION